ওয়েব ডিজাইন কী? কি কি শিখলে আপনিও ওয়েব ডিজাইনার হতে পারবেন?

টিপস এন্ড ট্রিকস
image_pdfimage_print

ডিজাইন আমরা কম বেশি সবাই বুঝি কিন্তু কারো কারো মনে শুরুতে অনেক প্রশ্ন থাকে কিংবা গড়বড় করে ফেলি আসলে কোনটা কি কাজ করে। ওয়েব ডিজাইন কি, এটা জানলেও আমরা গুছিয়ে বলতে পারি না অনেকে। ডিজাইন হচ্ছে কোনো আইডিয়া বা ধারণা সংগ্রহ করা এবং সেই আইডিয়াগুলোকে কোনো প্রক্রিয়ার মাধ্যমে সাজিয়ে নির্দিষ্ট কোনো কাজে সেগুলো ব্যবহার করা। ডিজাইন অনেক রকমের হতে পারে, যেমন- গ্রাফিক্স ডিজাইন, ওয়েব ডিজাইন। ওয়েব ডিজাইন সেইরকমই এক ধরনের ডিজাইন যা আমরা ওয়েবসাইটে দেখে থাকি।

যারা ওয়েব ডিজাইন শিখবেন ভাবছেন বা ওয়েব ডিজাইন আসলে কি, কিভাবে কাজ করে কিংবা কি কি শিখলে আপনি ওয়েব ডিজাইনার হতে পারবেন, এসব প্রশ্নের উত্তর খুঁজছেন, আশা করি তারা এই উত্তরগুলো পেয়ে যাবেন এই পোস্টের মাধ্যমে।

ওয়েব ডিজাইন কি?

ওয়েব ডিজাইন, খুব সহজ করে বলতে গেলে বলতে হয়, ওয়েবসাইট তৈরির প্রক্রিয়া। সোজা কথায় ইন্টারনেটে আমরা একটা ওয়েবসাইটে যা দেখি তাই ওয়েব ডিজাইন। একটা ওয়েবসাইট দেখতে কেমন হবে, কি রং ব্যবহার করলে ইউজারের কাছে ভালো লাগবে কিংবা কোন জিনিসটা কোন জায়গায় রাখলে ভালো দেখাবে, এসব এক সাথে করতে পারলে আপনিও হতে পারবেন একজন ওয়েব ডিজাইনার। কিন্তু এসব করবেন কিভাবে? এসব করতে হলে আপনাকে যা যা শিখতে হবে, একটু নিচেই পেয়ে যাবেন সেগুলোর বর্ণনা। তার আগে ওয়েব ডিজাইন সম্পর্কে আরো একটু ধারণা নেওয়া যাক। ওয়েব ডিজাইনের কয়েকটা উপাদান রয়েছে। যেমন-

লেআউটঃ একটা ওয়েবসাইট কিভাবে দেখাতে চান, কোন জিনিসটা কোন জায়গায় থাকবে যেমন-মেনুবার, টেক্ট কিংবা অন্য কোন উপাদান যা আপনার ওয়েবসাইটে আছে, এটা ঠিক করেই লেআউট তৈরী করা হয়। এটা আপনার কাস্টমার বা ক্লায়েন্ট বলেও দিতে পারে কিংবা আপনি নিজের মতো করতে পারেন।

রংঃ একটা ওয়েব সাইটের সৌন্দয্য নির্ভর করে রং নির্বাচন করার উপর। রং কাস্টমারের পছন্দমতো নেওয়া উচিত। তবে রং নির্বাচন নির্ভর করে ওয়েবসাইটের উদ্দেশ্য আর কিসের ওয়েবসাইট সেটার উপর।

গ্রাফিক্সঃ গ্রাফিক্স বলতে লোগো, ছবি, আইকন এ-সব, যা একটা ওয়েবসাইটের সৌন্দয্য বৃদ্ধি করে । সঠিক জায়গায় সঠিক জিনিস বসাতে পারলেই হবে।

ফন্টঃ আপনি যেই ওয়েব ডিজাইন করুন না কেন, ওই ওয়েবে যে টেক্সট্ ব্যবহার করবেন তার ফ্রন্ট যেনো ভালো হয়। কেননা, বিভিন্ন ধরণের ফন্ট বিভিন্ন ওয়েবসাইটকে সুন্দর করে। ফ্রন্ট বলতে যে লেখাগুলো দেখাবেন সেগুলোর স্টাইল।

কন্টেন্টঃ কন্টেন্ট বলতে ওয়েবসাইটের ম্যাসেজ। কি বলতে চান সেটা ভালোভাবে ফুটিয়ে তোলা। ওয়েবসাইটের কন্টেন্ট যেনো দরকারি আর গুরুত্বপূর্ণ হয়।

উপরের এই জিনিসগুলো মাথায় রাখলে একটা ভালো ওয়েব ডিজাইন সহজেই করা সম্ভব। এর বাইরেও কিছু জিনিস আমাদের জানা উচিত সেগুলো হচ্ছে-

নেভিগেশনঃ নেভিগেশন বলতে আমরা ওয়েবসাইটে যে মেনুবার দেখি সেটা। আপনার ওয়েবসাইটের সবগুলো বিষয় যেনো সহজেই ইউজার খুঁজে পায় কিংবা সার্চ করতে পারে, এই জন্য নেভিগেশন ব্যবহার করা।

মাল্টিমিডিয়াঃ মাল্টিমিডিয়া বলতে ভিডিও কিংবা অ্যানিমেশন ব্যবহার করা, যেন ইউজার আপনার বক্তব্য বা ম্যাসেজ সহজেই বুঝতে পারে।

আর একটা জিনিস না জানলেই নয়, খেয়াল রাখতে হবে ওয়েব ডিজাইন এমনভাবে করতে হবে যেনো সব ব্রাউজারে সাপোর্ট করে। আশা করবো ওয়েব ডিজাইন কি, কিভাবে একটা  ভালো ওয়েব ডিজাইন করা সম্ভব বুঝতে পেরেছেন।

কি কি শিখবেন?

এবার তাহলে জানা যাক কি কি শিখলে আপনি ওয়েব ডিজাইন করতে পারবেন বা ডিজাইনার হতে পারবেন। এই প্রশ্ন অনেকের মনেই আসে বিশেষ করে যারা একদমই নতুন। নানারকম কনফিউশন কাজ করে তাদের মধ্যে। কি শিখবো আগে, কি কি শিখলে ওয়েব ডিজাইন করতে পারবো ,আরো অনেক কিছু। ওয়েব ডিজাইন করতে গেলে আপনাকে যা আগে জানতেই হবে সেগুলো হচ্ছে-

  • এইচটিএমএল (HTML)
  • সিএসএস (CSS)
  • জাভাস্ক্রিপ্ট (JAVASCRIPT)

এইচটিএমএল (HTML)

এইচটিএমএল হল হাইপারটেক্সট্ মার্কআপ ল্যাঙ্গুয়েজ। এটা কিন্তু কোনো প্রোগ্রামিং ল্যাঙ্গুয়েজ না। এর সাহায্যে কতোগুলো ইলেকট্রনিক ডকুমেন্ট তৈরী করা হয়, যাকে বলা হয় ওয়েব পেজ আর এই ওয়েব পেজ আমরা ওয়েবসাইটে দেখি। মনে করেন আপনি একটা ঘর বানাবেন, এর জন্যে  যা যা দরকার যেমন-ইট, বালু, সিমেন্ট ইত্যাদি। এসব দিয়ে কিন্তু ঘর তুলে ফেলতে পারবেন।

ঠিক এরকমই এইচটিএমএল দিয়ে ওয়েব পেজের কাঠামো তৈরী করা হয় এবং কতোগুলো ট্যাগ ব্যবহার করে এই কাজ করতে হয়। যেমন- কোনো কিছু লিখলে  <p></p> ব্যবহার করতে হবে। html

সিএসএস (CSS)

সিএসএস হল ক্যাসকেডিয়ান স্টাইল সীট যার মাধ্যেমে আপনার ওয়েব পেজ দেখতে সুন্দর করতে পারবেন। ওই যে ঘর তুললেন মনে আছে? ঘর তোলার পর আপনি দেখতে সুন্দর করার জন্য রং করতে পারেন, দরজা-জানালা ভালোভাবে ঠিক জায়গায় লাগাতে পারেন। আর এই কাজটাই করে সিএসএস আপনার ওয়েব পেজের জন্যে। তাহলে ঘর তুললেই যে হয়ে গেলো এরকম না, ঠিক তেমনি এইচটিএমএল দিয়ে ওয়েব পেজ হবে কিন্তু সুন্দর করার জন্যে অবশ্যই সিএসএস ব্যবহার করতে হবে।

css

জাভাস্ক্রিপ্ট(JAVASCRIPT)

জাভাস্ক্রিপ্ট হলো স্ক্রিপ্টিং প্রোগ্রামিং ল্যাংগুয়েজ যার মাধ্যমে আপনি আপনার ওয়েব পেজের কঠিন কিছু কাজ খুব সহজেই করতে পারবেন। ওই যে আপনি ঘর তুললেন, রং করলেন  সবই হলো তাহলে আর বাকি কি? আপনি আপনার ঘরে বিদ্যুৎ নিবেন না? সুইচ দিলেই ফ্যান ঘুরা শুরু করে। এই যে কিছু ফাংশনাল কাজ এই কাজগুলোই করে জাভাস্ক্রিপ্ট।

JS

আপনি যদি ভাবেন আপনি ওয়েব ডিজাইন শিখবেন বা শিখছেন কিন্তু কি শিখবেন বুঝতে পারেছেন না, উপরের এই ৩ টা জিনিস শিখে ফেলেন, আপনাকে ওয়েব ডিজাইনার হতে কেউ আটকাতে পারেব না।  বর্তমান টেকনোলজির যুগে সব কিছু্রই এখন ওয়েবসাইট আছে এবং সব কাজ ওয়েবে করা হচ্ছে। ওয়েব ডিজাইন হতে পারে খুব ভালো একটা কাজের জায়গা যদি আপনি ভালো ডিজাইনার হতে পারেন। কেননা একটু খোঁজ নিলেই বুঝতে পারবেন ওয়েব ডিজাইনের চাহিদা বর্তমান অনেক অনেক বেশি এবং দিন দিন আরো বাড়ছে। ওয়েব ডিজাইন শেখার পথে আপনার যাত্রা শুভ হোক।

 

Source : 

image_pdfimage_print

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *